Home / জানা অজানা / বুদ্ধিমানদের এই পাচটি স্বতন্ত্র বৈশিষ্ট থাকে

বুদ্ধিমানদের এই পাচটি স্বতন্ত্র বৈশিষ্ট থাকে

বুদ্ধিমান বা বোকা এসবই আপেক্ষিক বিষয়। একটু আগে যে কাজটি করে নিজেকে খুব বুদ্ধিমান ভাবছেন, সময়ের পরিক্রমায় সেই কাজের জন্যই অনুতাপ করে থাকে মানুষ। তখন নিজেকে অনেক বোকা মনে হয়।
আবার স্ব স্ব ক্ষেত্রে প্রত্যেকেই নিজের বুদ্ধিমত্তার প্রয়োগ করে থাকেন। তাই বলা যায় একজন গবেষক বা একজন খেলোয়াড় বুদ্ধিমত্তার যে সংজ্ঞা ধারণ করবেন তা কখনই একই রকম হবে না।
তবে জগৎবিখ্যাত পদার্থবিদ আইনস্টাইন কল্পনাশক্তিকেই বুদ্ধিমত্তার মূল উপাদান ভাবতেন। ফলত, বুদ্ধিমত্তার কোনো ধরাবাধা সংজ্ঞা নেই, যদিও প্রচলিত অর্থে সমাজে অনেককে ভাবা হয় বুদ্ধিমান আবার কাউকে বোকা।
সাধারণ এই ধারনা নিয়েই দেখা গেছে বুদ্ধিমান মানুষদের মোটামুটি পাঁচটি স্বতন্ত্র বৈশিষ্ট্য থাকে।
১. বুদ্ধিমানরা বেশি নিশাচর :
মানুষের শরীর যেন একটি বায়োলজিকাল ঘড়ি। লাখো বছরের বিবর্তনে দৈনিক রুটিন গড়ে উঠেছে মানুষের। বিভিন্ন গবেষণায় দেখা গেছে স্বাভাবিক এই নিয়মের ব্যতয় ঘটাতো যে মানুষগুলো অর্থাৎ যারা নিশাচর জীবন যাপন করতো, তাদের জিনে অন্যরকম প্রভাব পড়তো। গবেষকদের ধারণা, বিবর্তন ও বংশগতির ধারায় এর প্রভাব এসে পড়েছে আধুনিক মানুষদের মাঝেও। তারা বলছেন, বুদ্ধিমান মানুষদের মধ্যে রাত জাগার হার তুলনামূলক বেশি।
২. বুদ্ধিমানরা যৌন আসক্তি স্বাভাবিকের তুলনায় কম :
বিস্ময়কর হলেও সত্য যে, বুদ্ধিমান মানুষের যৌন আকাঙ্ক্ষা কম হয়। নর্থ ক্যারোলিনা বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষকের মতে যেসব কিশোর-কিশোরীদের আই কিউ ১০০ থেকে ৭০ এর মধ্যে হয়, তারা সাধারণত ‘ভার্জিন’ বা যৌনতায় অনভিজ্ঞ হয়।
৩. বুদ্ধিমান মানুষরা ভাগ্যের পরিহাসের সাথে পরিচিত :
ধরা যাক, খুব গুরুত্বপূর্ণ একটি ব্যাপার যেমন আপনাকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়েছে এবং আপনি ক্ষমা ভিক্ষা করেছেন। এই জাতীয় প্রক্রিয়ায় পাঁচ মিনিট বিলম্ব উলট পালট করে দিতে পারে আপনার জীবন। পাঁচ মিনিটের ভুলে যদি ফাঁসির দড়ি পড়তে পড়তে ভাবেন ঈশ্বর কী নিষ্ঠুর ঠাট্টা করলেন আমার সাথে তবে, আপনি বুদ্ধিমান মানুষ নন। একজন বুদ্ধিমান মানুষ কখনই ভাগ্যকে তার সাথে পরিহাস করার সুযোগ দেন না ।
৪. উদারনৈতিকতা এবং ঈশ্বরে অবিশ্বাস :
বুদ্ধিমত্তা তত্ত্বের বিবর্তন বা এ সম্পর্কিত ‘সাভান্না নীতি’ বুদ্ধিমান মানুষদের বেশ কয়েকটি সাধারণ বৈশিষ্ট্য থাকতে বলে মত দেন। যেমন, বুদ্ধিমানরা উদারনৈতিক হন, মূল্যবোধের কড়াকড়ি নিয়ে ততটা মাথা ঘামান না। আরেকটি বৈশিষ্ট্য হলো তারা প্রায়শই ঈশ্বরে অবিশ্বাসী হন। বুদ্ধিমান পুরুষদের ক্ষেত্রে আরেকটি বৈশিষ্ট্য দেখা যায়, তাদের মধ্যে যৌন অস্বাভাবিকতার হার বেশি।
৫. বুদ্ধিমানরা হন অধূমপায়ী :
সাধারণত বুদ্ধিমান মানুষরা সিগারেট খান না। ইসরায়েলের টেল হাশোমার হাসপাতলে একটি সমীক্ষা নেয়া হয়েছে। প্রায় বিশ হাজার যুবকের উপর পরীক্ষায় দেখা গেছে যারা যত বেশি ধূমপান করেন তাদের আইকিউ তত কম হয়।

Share With

About Abir

Check Also

বরফ থেকে ধোয়া বের হয় না কি? জানুন

বরফ থেকে যেটা বের হয় সেটা ধোয়া নয়। সেটা জলীয় বাষ্প। গরম পানি থেকে যেমন …

Leave a Reply